আবরার ফাহাদের রূহের মাগফেরাত কামনায় মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত

154

আলেক চাঁদ: বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়য়ের মেধাবী ছাত্র নিহত আবরার ফাহাদের রূহের মাগফেরাত কামনায় কুষ্টিয়ায় জিলা স্কুলে মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। আবরার ফাহাদ এই জিলা স্কুলের ২০১৫ ব্যাচের ছাত্র ছিলেন। প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের আয়োজনে ও কুষ্টিয়া জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইয়াছির আরাফাত তুষার ও সাধারণ সম্পাদক সাদ আহমেদ এর পৃষ্ঠপোষকতায় গতকাল বুধবার বেলা ১১টায় জিলা স্কুলের মসজিদে এই মিলাদ ও দোয়া মাহফিল টি অনুষ্ঠিত হয়।

এসময় প্রাক্তন শিক্ষার্থী, নিহত আবরার সহপাঠীরা ছাড়াও আবরার বাবা বরকত উল্লাহ, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও শহর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান আতা, স্কুলের প্রধান শিক্ষক খলিলুর রহমান,জেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রেদোয়ান রনি,কুষ্টিয়া সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি স্বপন হোসেন, সাধারণ সম্পাদক (ভারপ্রাপ্ত) মাহবুব আলম লিমন, সদর উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম আহবায়ক জয়নাল আবেদীন সহ ছাত্রলীগের বিভিন্ন ইউনিট এর নেতাকর্মীরা।

মিলাদ ও দোয়া মাহফিল টি পরিচালনা করেন জিলা স্কুল মসজিদের পেশ ইমাম মাওলানা আমানত উল্লাহ। এসময় তারা আসামীদের গ্রেফতারে সন্তুষ্ঠি প্রকাশ করে আবরার হত্যাকারীদের দ্রুত দৃষ্ঠান্তমূলক শাস্তি দাবী করেন এবং আবরার ফাহাদ এর বিদেহী আত্মার শান্তি কামনায় ও পরিবারের মঙ্গল কামনায় দোয়া করা হয়। উল্লেখ্য, বুয়েট’র ইলেকট্রিক এন্ড ইলেক্ট্রনিক্স বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে বিশ^বিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের কতিপয় নেতারা পিটিয়ে হত্যা করে।

গত রবিবার দিবাগত রাত তিনটার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শের-ই-বাংলা হলের নিচতলা থেকে আবরারের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। ময়না তদন্ত শেষে মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টায় তৃতীয় জানাজার পরে কুষ্টিয়ার কুমারখালীর রায়ডাঙ্গায় নিজ গ্রামে দাফন করা হয়। আবরার ফাহাদের বাবা বরকত উল্লাহ ১৯ জনকে আসামী করে রাজধানীর চকবাজার থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ ইতিমধ্যেই ১৩ জনকে গ্রেফতার করেছে।