গাংনীর দুর্লভপুর গ্রামে দু’পক্ষের সংঘর্ষে আহত -৩

136

মেহেরপুর প্রতিনিধি: মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার দুর্লভপুর গ্রামে ব্যাক্তিগত রাস্তার উপর দিয়ে পাট বোঝায় গরুর গাড়ি যাওয়াকে কেন্দ্র করে দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। গত রবিবার বিকেলে দুর্লভপুর গ্রামের মধ্যো পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। জানা যায়, ইবরাহিমের ছেলে ইশারত পাট বোঝায় গাড়ি নিয়ে মৃত মুক্তার আলির ছেলে রাজ্জাকের বাড়ির সামনে কাদার মধ্যে আটকে যায়। এমন সময় রাজ্জাক ইশারতের উপর চড়াও হলে উভয়ের মধ্যে বাকবিতন্ডা শুরু হয়।

সংবাদ পেয়ে মোজাম্মেল হকের ছেলে সুমন এসে বিষয়টি মিমাংসা করার চেষ্টা করলে রাজ্জাক তার উপরেও চড়াও হলে প্রতিবেশি নুর বক্স বিশ্বাসের ছেলে আঃ মান্নান হাজির হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করে। এ সময় হট্টোগোলের মাত্রা শুরু হলে উভয় পক্ষের লোকজন লাঠিসোঠা ও দেশীয় অস্ত্র নিয়ে জড় হতে থাকে। একপর্যায়ে উভয় পক্ষের মধ্যে ইটপাটকেল নিক্ষেপ শুরু হয়। এসময় ইশারত গাড়িবোঝায় পাট ফেলে পালিয়ে যায়।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে এবং ইশারতকে তার পাট বোঝায় গাড়ি বুঝিয়ে দেয়। পরে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৫ জনকে আটক করে গাংনী থানা পুলিশ। আটক ৫জন হলো মৃত নাজির হোসেন এর ছেলে রফিকুল,মৃত পালানের ছেলে রিপন, মৃত আবুজেলের ছেলে ইছারুদ্দিন, আঃ ছাত্তারের ছেলে আমজাদ ও আঃ রাজ্জাকের ছেলে রকিব। এদিকে এ ঘটনার জের ধরে ঘটনার দিন সন্ধ্যার দিকে মকবুলের ছেলে আবেদ মসজিদে নামাজ আদায় করতে গেলে তাকে বিভিন্নভাবে হুমকি ধামকি দেওয়া হয় বলে জানান প্রতিবেশি নজরুল। গাংনী থানার ওসি ওবাইদুর রহমান জানান, দু’পক্ষের মধ্যে দীর্ঘদিনের মত বিরোধ ছিল সেটা উভয় পক্ষকে ডেকে মিমাংসা করা হয়েছে। বর্তমানে এলাকায় শান্তি বিরাজ করছে।