দৌলতপুরে পুত্রবধূর হাতে শাশুড়ি খুন

739

নিজস্ব প্রতিনিধি: কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে পুত্র বধূর হাতে শাশুড়ি রবেজান খাতুনকে (৬০) খুনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় ঘাতক গৃহবধূ ও তার দুই ছেলেকে আটক করেছে পুলিশ। সোমবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার হোগলবাড়িয়া ইউনিয়নের কল্যাণপুর বটতলা শ্বশানঘাটপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ ও স্থানীয়রা জনায়, মৃত ছিদ্দিক বিশ্বাসের স্ত্রী রবেজন খাতুন তার মালয়েশিয়া প্রবাসী ছেলে মন্টু বিশ্বাসের স্ত্রী রিনা খাতুন এবং তার দুই ছেলে সজিব ও সজল কল্যাণপুর বটতলা শ্বশানঘাটপাড়া এলাকায় বেশ কিছুদিন ধরে বসবাস করে আসছেন।

পারিবারিক বিরোধ নিয়ে মাঝে মধ্যেই ছেলের বৌ রিনা খাতুনের সাথে শাশুড়ি রবেজান খাতুনের ঝগড়া বিবাধ বাঁধে। এরই জের ধরে সোমবার সকালে শাশুড়ি রবেজান খাতুন ও ছেলের বৌ রিনা খাতুনের সাথে ঝগড়া বাঁধলে একপর্যায়ে রিনা খাতুন ক্ষুব্ধ হয়ে শাশুড়ি রবেজান খাতুনকে ধাক্কা দিলে সে মাটিতে ছিটকে পড়ে মারা যায়।

এনিয়ে এলাকায় চিৎকার ও কান্নাকাটি শুরু হলে খবর পেয়ে দৌলতপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য লাশ মর্গে পাঠায় এবং জিঞ্জাসাবাদের জন্য গৃহবধূ রিনা খাতুন (৩১), তার পালিত ছেলে সজিব (২৫) ও নিজ ছেলে সজলকে (১৫) আটক করে দৌলতপুর থানায় নিয়েছে। এ ঘটনায় দৌলতপুর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের হয়েছে। রবেজান খাতুন নিহত হওয়ার বিষয়ে দৌলতপুর থানার ওসি আজম খান বলেন, মৃত্যুর বিষয়টি রহস্যজনক। তদন্ত চলছে এবং নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। তবে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৩ জনকে থানা হাফাজতে নেয়া হয়েছে।