1. zillu.akash@gmail.com : admi2017 :
  2. editor@dailynewsbangla.com : Daily NewsBangla : Daily NewsBangla
পল্লী বিদ্যুত সমিতির বিভিন্ন অনিয়মের বিরুদ্ধে মানববন্ধন করেছে ভূক্তভোগীরা - dailynewsbangla
রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ০৬:০১ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
বোয়ালমারীতে সরকারী রাস্তার কাছ কর্তন ও ফসলি জমির মাটি কাটার অভিযোগ  রাজশাহীর বাগমারায় আওয়ামীলীগ নেতার ছত্রছায়ায় শিবির সভাপতি স্বাস্থ্যসম্মত খাদ্য সরবরাহ নিশ্চিত করতে জনউদ্যোগ সংগঠনের সংবাদ সম্মেলন বীর মুক্তিযোদ্ধা ডাঃ ইমদাদুল হক আর নেই জাতীয় নির্বাচনকে সামনে রেখে ঐক্যের ডাক দিলেন টোকেন চৌধুরী পবায় অবৈধ পুকুর খননের সময় আটক ১ , মেশিন জব্দ  বোয়ালমারীতে ১০২টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৪৭ জন প্রধান শিক্ষকেরর পদ শূন্য জীবনতরী সমাজকল্যাণ সংস্থার পক্ষ থেকে শিক্ষাবৃত্তি ও শীতবস্ত্র প্রদান বিশ্ব ইজতেমার আখেরি মোনাজাত শেষ, বিশ্ব মুসলিমের জন্য দোয়া আ. লীগ যে ওয়াদা করে তা রক্ষা করে: প্রধানমন্ত্রী

পল্লী বিদ্যুত সমিতির বিভিন্ন অনিয়মের বিরুদ্ধে মানববন্ধন করেছে ভূক্তভোগীরা

ডেইলী নিউজ বাংলা ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ২১ নভেম্বর, ২০২০
নওগাঁর সাপাহারে পল্লী বিদ্যুতের বিভিন্ন অনিয়মের বিরুদ্ধে মানববন্ধন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়েছে।

আবু বক্কার,সাপাহার (নওগাঁ) প্রতিনিধি: নওগাঁর সাপাহারে পল্লী বিদ্যুতের বিভিন্ন অনিয়মের বিরুদ্ধে মানববন্ধন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়েছে। দেখাগেছে, শনিবার বিকেল ৪ টায় সাপাহার উপজেলার ভুক্তভোগীরা থানা রোডে পল্লী বিদ্যুতের বিভিন্ন অনিয়মের কথা তুলে ধরে ঘন্টাকাল ব্যাপী মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেন তারা। মানব বন্ধনে ভুক্তভোগীরা বলেন, পল্লী বিদ্যুত সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা কর্মচারীরা বে -পরোয়া ভাবে লাইন কাটা ব্যাবসায় মেতে উঠেছে।

একটি লাইন কাটার পর অবৈধভাবে প্রতি মিটারে ৬ শ টাকা করে পুন:রায় সংযোগ ফি নিচ্ছে তারা। পূর্বের বিল পরিশোধের কাগজ থাকা সত্বেও কম্পিউটারে এন্ট্রি নাই মর্মে বকেয়া বিল দেখিয়ে লাইন কাটছে সময় না দিয়েই। এক মাস বাঁকী থাকলেও বিল পরিশোধের সময় না দিয়ে লাইন কাটা যেন একটি ঠুনকো সিদ্ধান্তে মনে করছে সাপাহার জোনাল অফিস বিল পরিশোধ করতে গেলে লম্বা লাইনের ভিড়ে বিল প্রদান বিড়ম্বনা হয়রানির স্বীকার হচ্ছে গ্রাহকরা। এছাড়াও পল্লী বিদ্যুত সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা কর্মচারীদের উগ্র মেজাজের কারনে তাদের সাথে কথা বলতে পারেন না সাধারণ গ্রাহকরা।

ভুক্তভোগীরা আরো জানান, বহিরাগত লোকজন দিয়ে মিটার রিড নেয় পল্লী বিদ্যুত অফিস কর্তৃপক্ষ। অনেক সময় মিটার না দেখে বিল প্রস্তুত করার ফলে প্রতিমাসে অতিমাত্রায় বাড়তি বিল আসছে। এ বিষয়গুলো নিয়ে সংশ্লিষ্ট দপ্তরের লোকজনের সঙ্গে কথা বলতে গেলে কোন পাত্তাই দেননা সাধারণ জনগনকে। যাতে করে চরম ভোগান্তির স্বীকার উপজেলার সর্বোস্তরের জনগন। এ বিষয়গুলো নিরসনে সংশ্লিষ্ট দপ্তরের নজরদারি কামনা করছেন এলাকার ভুক্তভোগীরা। অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের নের্তৃবৃন্দ, গণমাধ্যম কর্মী সহ শতাধিক ভুক্তভোগী উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো সংবাদ