1. zillu.akash@gmail.com : admi2017 :
  2. editor@dailynewsbangla.com : Daily NewsBangla : Daily NewsBangla
রাজশাহীর গোদাগাড়িতে পুলিশের হাতে সাংবাদিক লাঞ্ছিত - dailynewsbangla
শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ১২:০৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
দৌলতপুরে অস্ত্র মামলার পলাতক আসামি র‌্যাবের হাতে গ্রেফতার মহাদেবপুর ও বদলগাছী‌তে ‌দিন ব‌্যাপী প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী অনু‌ষ্টিত প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ ও প্রদর্শনীর শুভ উদ্ধোধন ও সমাপনী বোয়ালমারীতে দুই মাদক কারবারী আটক বোয়ালমারীতে প্রাণিসম্পদ সেবা দায়সারা আয়োজন বোয়ালমারীতে সরকারী অফিসে ঢুকে মারধর ভাংচুরের ঘটনায় দুই যুবকের নামে মামলা দৌলতপুরে প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ ও প্রাণী প্রদর্শনীর উদ্বোধন প্রাণিসম্পদে নানামুখী আধুনিক সেবা জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিতেই মেলার আয়োজন। -আকাশ কুমার কুন্ডু  কুষ্টিয়ায় পানিতে ডুবে শিশুসহ ৩ জনের মৃত্যু মহাদেবপুরে পূর্ব শত্রুুতার জের ধরে  বিষ প্রয়োগে চার বিঘা জমির ধান পুড়িয়ে দেয়ার অভিযোগ

রাজশাহীর গোদাগাড়িতে পুলিশের হাতে সাংবাদিক লাঞ্ছিত

ডেইলী নিউজ বাংলা ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩

রাজশাহী ব্যুরোঃ রাজশাহীর গোদাগাড়ীতে গোপন তথ্যের ভিত্তিতে সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে এক সাংবাদিককে অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ ও লাঞ্ছিত করার অভিযোগ উঠেছে পুলিশ কনস্টেবল এর বিরুদ্ধে।

বুধবার (১ফেব্রুয়ারি) বিকেল ৩.৪৫ মিনিটের দিকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ভুক্তভোগী সাংবাদিক মোঃ আবু তাহের। আবু তাহের দৈনিক মাতৃজগত পত্রিকার রাজশাহী জেলা প্রতিনিধি সংবাদদাতা হিসেবে কর্মরত রয়েছেন।

সূত্রমতে জানাযায়, গোপন তথ্যের ভিত্তিতে সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে সাংবাদিক মো: আবু তাহের কে সবার সামনে গালাগালি করেন পুলিশ কনস্টেবল মোঃ আরিফুল ইসলাম (বিপি নাম্বারঃ৮৫০৪০১৪৬৯৯)। ইতিপূর্বেও এই কনস্টেবলের বিরুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ীর কাছ থেকে মোটর সাইকেল উপহার নেওয়ার খবর পাওয়া যায়। তার বর্তমান কর্মস্থল গোদাগাড়ি থানার প্রেমতলি তদন্ত কেন্দ্রে।
তবে একজন সংবাদকর্মীর সাথে পুলিশ কনস্টেবলের এমন আচরণ খুবই দুঃখজনক। কারন রাষ্ট্রীয় উন্নয়ন ও জনগণের সেবায় একজন সাংবাদিক বা সংবাদমাধ্যমের ভূমিকা অতুলনীয়। তাই সাংবাদিকের সাথে এমন আচরণের দ্রুত বিচারের দাবী জানান রাজশাহীতে কর্মরত সাংবাদিকরা। এতে ঐ কনস্টেবলের সমালোচনা করে তদন্ত সাপেক্ষে দ্রুত বিচারের দাবী জানান।

এবিষয়ে সাংবাদিক আবু তাহের চরম আতঙ্কিত রয়েছেন। কারন যেকোন সময় ঐ কনস্টেবল মিথ্যা মামলায় (পেনডিং) বা মাদক মামলায় ফাঁসাতে পারে।

বিষয়টি নিয়ে রাজশাহী জেলা পুলিশের মিডিয়া মুখ্যপাত্র ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইফতেখায়ের আলমের সাথে কথা বললে তিনি জানান, এমন ঘটনা আমার জানা নাই । আমি খোঁজ নিয়ে দেখছি। যদি এমন ঘটনা ঘটে থাকে তাহলে খুবই দুঃখজনক। তবে কেন হয়েছে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো সংবাদ